লালমাইয়ে শতাধিক পরিবারে অপু আলম’র খাদ্য সহায়তা

328

জহিরুল ইসলাম জহির ।। লালমাইয়ে করোনায় ক্ষতিগ্রস্থ দিনমজুর, ভিক্ষুক, হতদরিদ্রসহ আর্থিক সংকটে পড়া শতাধিক পরিবারে খাদ্য সহায়তা করেছেন বৃহত্তর কুমিল্লা সদর দক্ষিণ উপজেলা আওয়ামীলীগের সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক, লালমাই প্রেসক্লাবের সদস্য অধ্যাপক আলমগীর হোসেন অপু। লক ডাউনে নিজে ঘরে থাকলেও তিনি দলীয় নেতাকর্মীদের মাধ্যমে সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে এসব খাদ্য সামগ্রী হতদরিদ্রদের ঘরে ঘরে পৌছে দিয়েছেন।

জানা যায়, অর্থমন্ত্রীর নির্দেশে করোনা ভাইরাসের প্রকোপ শুরু হতেই অধ্যাপক অপু আলম এলাকাবাসীর পাশে দাঁড়ান। ঢাকা ইউনিভার্সিটি স্টুডেন্ট এসোসিয়েশন অব লালমাই (ডুসাল) এর মাধ্যমে তিনি গত ২৫ মার্চ উপজেলাবাসীর মধ্যে মাস্ক, হ্যান্ড সেনিটাইজার ও সচেতনতামূলক লিফলেট বিতরণ করেছেন।

বাগমারা উত্তর ইউপি চেয়ারম্যান আবুল কাশেম ও বজলু মেম্বারের মাধ্যমে অধ্যাপক অপু নিজ গ্রাম মনোহরপুরে ৩০টি পরিবারে খাদ্য সামগ্রী দিয়েছেন। এছাড়া ভুলইন দক্ষিণ ইউনিয়নের নিশ্চিন্তপুর গ্রামে যুবলীগ নেতা তুষারের মাধ্যমে ১০টি পরিবার, আমুয়ায় ১টি পরিবার, মোস্তফাপুরে ১টি পরিবার, লালমাই উপজেলা ফ্রেন্ডস সোসাইটির কাউছার ও নাছিরের মাধ্যমে ৫০টি পরিবার, বাগমারা দক্ষিণের চাঁনকলমিয়ায় যুবলীগ নেতা বিল্লালের মাধ্যমে ৫টি পরিবার ও ফতেহপুরে ব্যাংকার সোলাইমানের মাধ্যমে ৪টি পরিবারে তার খাদ্য সামগ্রী পৌছেছে।

এদিকে ১৬ এপ্রিল পর্যন্ত অর্থমন্ত্রী, জেলা প্রশাসন, উপজেলা প্রশাসন, থানা পুলিশসহ বিভিন্ন সামাজিক সংগঠন ও ব্যক্তি উদ্যোগে লালমাইয়ের সাড়ে ১১ হাজার পরিবারে খাদ্য সামগ্রী পৌছেছে। এসবের মধ্যে অর্থমন্ত্রী ও সরকারি উদ্যোগে প্রায় ৬ হাজার পরিবারকে খাদ্য সহায়তা দেয়া হয়েছে। এছাড়া মাননীয় অর্থমন্ত্রী আ.হ.ম মুস্তফা কামাল এমপি ও লালমাই উপজেলা নির্বাহী অফিসার কেএম ইয়াসির আরাফাত এর আহবানে সাড়া দিয়ে জনপ্রতিনিধি, রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দ, বিভিন্ন সামাজিক সংগঠন ও বিত্তশালীরা হতদরিদ্রদের পাশে দাঁড়িয়েছেন।

লালমাই উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান মিজানুর রহমান মজুমদারের উদ্যোগে ২শতাধিক পরিবার, উপজেলা আওয়ামীলীগের ১নং যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও বাগমারা উত্তর ইউপি চেয়ারম্যান আবুল কাশেমের উদ্যোগে ৩ সহ¯্রাধিক পরিবার, রিদম ফার্নিচারের মালিক ও তরুণ উদ্যোক্তা রিপন বৈষ্ণবের উদ্যোগে ৩শতাধিক পরিবার, আল মিনা ডেভেলপারস উদ্যোগে ৬৫টি পরিবার, সিরাজ মিয়া ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে ৩শ পরিবার, পেরুল উত্তরে সাবেক যুবলীগ নেতা আবু জাফর মুহাম্মদ সালেহ, আওয়ামীলীগ নেতা ডা: অহিদুর রহমান মাছুম ও যুবলীগ নেতা কাজী মাওলানা রবিউল হোসাঈনের নেতৃত্বে সামাজিক সংগঠন আশার আলো’র পক্ষে ৩শতাধিক পরিবার, বন্ধন-২০০০’র উদ্যোগে ৭০টি পরিবার, বরল যুব সমাজের উদ্যোগে ১শ পরিবার, উদ্দীপন বাগমারা’র প্রতিষ্ঠাতা কামাল হোসেনের উদ্যোগে ২০টি পরিবার, হোমিও চিকিৎসক ডা: শাহ আলমসহ কয়েকজন ব্যবসায়ীর উদ্যোগে ১শ পরিবার, কাঁকসার নবজাগরনের উদ্যোগে ২শ পরিবার, বাকই উত্তর ইউপি চেয়ারম্যান আইউব আলী’র ব্যক্তিগত উদ্যোগে ৩শ পরিবার, পেরুল দক্ষিণ ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মোস্তাফিজুর রহমান ডালিমের উদ্যোগে ৭শ পরিবার, পরিবহন ব্যবসায়ী মাহফুজুর রহমানের উদ্যোগে পেরুল উত্তর ও পেরুল দক্ষিণের ২শতাধিক পরিবার, কাতার প্রবাসী আনোয়ার হোসেন সুমনের উদ্যোগে বাকই উত্তর ইউনিয়নের শতাধিক পরিবার, পেরুল দক্ষিণের শাসনপাড়া গ্রামের প্রবাসী সোহাগের উদ্যোগে ৭৭টি পরিবার, যাদবপুর গ্রামীণ সমাজ কল্যান সংস্থার নির্বাহী পরিচালক মাসুদুর রহমানের উদ্যোগে ১শটি পরিবার ও ব্যবসায়ী প্রদীপ আর্চায্য’র উদ্যোগে ২শ পরিবারে খাদ্য সামগ্রী দেয়া হয়েছে। লালমাই উপজেলা ছাত্রলীগের ব্যানারে আবদুল্লাহ আল খীদরি’র নেতৃত্বে সৌদি প্রবাসীদের সহায়তায় ১৬ এপ্রিল দিনব্যাপী ভ্রাম্যমান ফ্রী কাঁচাবাজার বিতরণ করেছেন কয়েকজন ছাত্রলীগ কর্মী।
বিশেষত: লালমাই থানার অফিসার ইনচার্জ মোহাম্মদ আইয়ুব নিজের বেতনের টাকায় ৩টি প্রবাসী পরিবারসহ ২শতাধিক পরিবহন শ্রমিক ও হতদরিদ্র পরিবারে খাদ্য সামগ্রী পৌছে দিয়েছেন।