দেড় বছর নিজের ঘরে ঘুমাতে পারেননি উজ্জল 

21

স্টাফ রিপোর্টার ।। স্বাস্থ্য সহকারি উজ্জল চন্দ্র সিংহ। বাগমারা উত্তর ইউনিয়ন কেশনপাড় গ্রামের মৃত নকেন্দ্র চন্দ্র সিংহ’র একমাত্র পুত্র। ইপিআই কর্মী হিসেবে কাজ করেন ভুলইন উত্তর ইউনিয়নের ৩নং ওয়ার্ডে।

গত বছরের প্রথম দিকে লালমাই উপজেলার প্রাক্তন নির্বাহী অফিসার কেএম ইয়াসির আরাফাত ও প্রাক্তন স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডাঃ জয়াশীষ রায়’র নির্দেশে অতিরিক্ত দায়িত্ব হিসেবে করোনার নমুনা সংগ্রহ শুরু করেন উজ্জল সিংহ। প্রাথমিকভাবে তিনি প্রবাস ফেরতদের নমুনা সংগ্রহ করেন। পরবর্তীতে তাকে লালমাই উপজেলার নিয়মিত করোনার নমুনা সংগ্রহ ও সিভিল সার্জন কার্যালয়ে নমুনা পৌঁছানোর দায়িত্ব দেওয়া হয়। বাগমারা ২০ শয্যা হাসপাতালের রেজিষ্ট্রার অনুযায়ী ৭/৩/২০২০ইং থেকে ৫/৮/২১ইং পর্যন্ত তিনি মোট ১৪শ ১২টি নমুনা সংগ্রহ করেছেন। স্ত্রী-সন্তানসহ প্রতিবেশীরা সংক্রমিত হওয়ার আশংকায় তিনি গত দেড় বছর ধরে নিজের ঘরে ঘুমান না। বাড়ীর পাশের একটি সেলু মেশিনঘরে রাত্রীযাপন করতেন।

কুমিল্লার সিভিল সার্জনের নির্দেশে গত ৬ আগষ্ট থেকে লালমাই উপজেলায় করোনার নমুনা সংগ্রহ শুরু করেন ল্যাব টেকনিশিয়ান সুইটি আক্তার। আর উজ্জল সিংহ কে করোনার টিকা কার্যক্রমে সম্পৃক্ত করা হয়েছে।
নমুনা সংগ্রহ কার্যক্রম থেকে মুক্তি পাওয়ায় তিনি নিজের পরিবারের সাথে থাকতে শুরু করেছেন।

উজ্জল চন্দ্র সিংহ বলেন, করোনার নমুনা সংগ্রহ করতে গিয়ে আমি দীর্ঘ দেড় বছর ঘরে ঘুমাতে পারিনি। এতে আমার পরিবারের সদস্যরা কিছুটা ক্ষতিগ্রস্থ হলেও লালমাইবাসী উপকৃত হয়েছে। এতেই আমি সন্তোষ্ট। এবার গণটিকাদান কার্যক্রমে সম্পৃক্ত হয়েছি। বিশ্বাস করি এখানেও মানুষকে সেবা দিতে পারবো। নমুনা সংগ্রহ কার্যক্রমে আমি সাবেক ও বর্তমান ইউএনও স্যার, আরএমও স্যার, বর্তমান ওসি স্যার ও সংবাদকর্মীদের সহায়তা পেয়েছি।

পেরুল উত্তর ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক অহিদুর রহমান মাছুম মন্তব্য করে বলেন, আমার একজন আত্মীয় গুরুতর অসুস্থ ছিলেন। হাসপাতালে নিয়ে নমুনা পরীক্ষার সুযোগ ছিল না। একজন সাংবাদিকের মাধ্যমে জানতে পেরে উজ্জল সিংহ দাদা বাড়ীতে এসে নমুনা সংগ্রহ করেছিলেন। আমি ও আমার পরিবার তার কাছে কৃতজ্ঞ।

লালমাই উপজেলার প্রধান স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ও বাগমারা হাসপাতালের আরএমও ডাঃ আনোয়ার উল্যাহ বলেন, ল্যাব টেকনিশিয়ান না থাকায় দীর্ঘ দেড় বছর ধরে স্বাস্থ্য সহকারি উজ্জল সিংহ করোনার নমুনা সংগ্রহ করেছেন। সিভিল সার্জন মহোদয়ের নির্দেশে বর্তমানে লালমাই উপজেলায় একজন ল্যাব টেকনিশিয়ান কর্মরত রয়েছেন। সেজন্য উজ্জল সিংহ কে নমুনা সংগ্রহের দায়িত্ব থেকে অব্যাহতি দেওয়া হয়েছে।