তাহের মজুমদারকে মনে রেখেছে লালমাইবাসী

438

লালমাই বার্তা ডেস্ক  ।।  বৃহত্তর কুমিল্লা সদর দক্ষিণ উপজেলা আওয়ামীলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক ও বাগমারা দক্ষিণ ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক সফল চেয়ারম্যান বীরমুক্তিযোদ্ধা মরহুম আলহাজ্ব আবু তাহের মজুমদার কে মনে রেখেছে তাঁর স্বপ্নের লালমাই উপজেলাবাসী। ২৮ মে তৃতীয় মৃত্যুবার্ষিকীতে তাঁকে শ্রদ্ধাভরে স্মরণ করেছেন কুমিল্লা সদর দক্ষিণ ও লালমাই উপজেলার সাধারণ মানুষ। দিনব্যাপী বিভিন্ন উপাসনালয়ে তাঁর জন্য প্রার্থনা করা হয়েছে। অর্থমন্ত্রী আ.হ.ম মুস্তফা কামাল এমপির দিকনির্দেশনায় লালমাই উপজেলা আওয়ামীলীগ, যুবলীগ ও ছাত্রলীগের উদ্যোগে বৃহস্পতিবার আনুষ্ঠানিকভাবে প্রয়াত এই নেতার ৩য় মৃত্যুবার্ষিকী পালিত হয়েছে।

ওইদিন সকালে দলের নেতাকর্মী ও সাধারণ মানুষ স্বাস্থ্যবিধি মেনে উপজেলার বাগমারা দক্ষিণ ইউনিয়নের আশকামতা গ্রামস্থ মরহুমের সমাধিস্থলে কবর জিয়ারত, মিলাদ ও দোয়া মোনাজাতে অংশগ্রহণ করেন। এর আগে তাঁর রুহের মাগফেরাত কামনায় কোরআন খতমের আয়োজন করা হয়।

এসময় উপস্থিত ছিলেন লালমাই উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আব্দুল মালেক, ভূলইন উত্তর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আবদুর রহিম, বীর মুক্তিযোদ্ধা আমিনুল হক আমিন, সদর দক্ষিণ উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক আলমগীর হোসেন অপু, লালমাই উপজেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আয়াতুল্লাহ, বাগমারা দক্ষিণ ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মোঃ নিজাম উদ্দিন, বাগমারা দক্ষিণ ইউনিয়ন যুবলীগের আহবায়ক কাউছার মোর্শেদ মজুমদার, উপজেলা যুবলীগ নেতা কাজী কামরুল হাসান ভুট্টো, আবুল কালাম আজাদ, স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতা আক্তার হোসেন পারভেজ, বাগমারা দক্ষিণ ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সভাপতি ও উপজেলা ছাত্রলীগ নেতা আবদুল হান্নান মিয়াজি, ভুলইন দক্ষিণ ইউনিয়ন ছাত্রলীগের আহবায়ক প্রভাষক আমান উল্যাহ আমান, বাকই উত্তর ইউনিয়ন ছাত্রলীগ সভাপতি শাহ পরান সওদাগর, বেলঘর দক্ষিণ ইউনিয়ন ছাত্রলীগ সভাপতি মিনহাজ উদ্দীন প্রমুখ।

২০১৭ সালের ২৮ মে রবিবার ভোর ৬.৪০ ঘটিকায় বীরমুক্তিযোদ্ধা আবু তাহের মজুমদার বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় হাসপাতালের আইসিও তে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ইন্তেকাল করেছেন। মৃত্যুকালে তিনি স্ত্রী ও ৩ কন্যা সন্তানসহ অসংখ্য গুনগ্রাহী রেখে গেছেন। তাঁর মৃত্যুতে কুমিল্লা দক্ষিণ জেলা তথা লালমাই অঞ্চলের আওয়ামী নেতাকর্মীদের মাঝে শোকের ছায়া নেমে এসেছিল।

উল্লেখ্য বীর মুক্তিযোদ্ধা আবু তাহের মজুমদার ১৯৫৪ সালে লালমাই উপজেলার (সাবেক কুমিল্লা সদর দক্ষিণ) বাগমারা দক্ষিণ ইউনিয়নের আশকামতা গ্রামের কৃষক মরহুম আশ্রাফ আলী মজুমদারের ঘরে জন্মগ্রহন করেন। ঐতিহ্যবাহী বাগমারা উচ্চ বিদ্যালয়ে পড়াকালীন তিনি ছাত্রলীগে সম্পৃক্ত হয়ে পড়েন। এরপর তিনি কুমিল্লা ভিক্টোরিয়া সরকারি কলেজের নিউ হোস্টেল ছাত্রলীগের সভাপতির দায়িত্ব পালন করেন। পর্যায়ক্রমে সাবেক এমপি মরহুম অধ্যক্ষ আবুল কালাম মজুমদার’র হাত ধরে তিনি জেলা ছাত্রলীগের রাজনীতিতে জড়িয়ে পড়েন। ১৯৭১ সালে ছাত্রলীগের কর্মীবাহিনীদের নিয়ে দেশ স্বাধীনের আন্দোলন তথা মুক্তিযুদ্ধে ঝাঁপিয়ে পড়েন। স্বাধীনতার পর ১৯৭৪ সালে তাকে সাব ডিভিশন ছাত্রলীগের সভাপতির দায়িত্ব দেওয়া হয়। ১৯৭৭ সালে তাকে বৃহত্তর বাগমারা ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক নির্বাচিত করা হয়। টানা ২৮ বছর তিনি এ পদে দায়িত্ব পালন করেন। দীর্ঘ অভিজ্ঞতার পর ২০০৫ সালের ৬ মে সম্মেলনের মাধ্যমে তাকে বৃহত্তর কুমিল্লা সদর দক্ষিণ উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদকের দায়িত্ব দেওয়া হয়। এরপর ২০১৬ সালের ৬ আগষ্ট সম্মেলনের মাধ্যমে আবু তাহের মজুমদার কে ২য় বারের মত উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক হিসেবে মনোনীত করা হয়। তাছাড়া ২০১১ সালের ১১ অক্টোবর অনুষ্ঠিত বাগমারা দক্ষিণ ইউপি নির্বাচনে তিনি বিপুল ভোটে বিজয়ী হয়ে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হন এবং ২০১৬ সালে ৪ জুন আওয়ামীলীগ মনোনীত নৌকা প্রতীকের প্রার্থী হয়ে বিনা প্রতিদ্বন্ধীতায় চেয়ারম্যান নির্বাচিত হন।